Mon. May 27th, 2024

ডায়না চা বাগান থেকে উদ্ধার চিতাবাঘের দেহ, খাদ্যে বিষক্রিয়ায় মৃত্যু বলে অনুমান বনদফতরের

1 min read

আজকেরবার্তা, জলপাইগুড়ি,২০এপ্রিলঃ জলপাইগুড়ি জেলার বানারহাট ব্লকের শ্যামবাড়ী ডিভিশনে ডায়না চা-বাগানের ভেতর থেকে উদ্ধার হল এক চিতাবাঘের মৃতদেহ। প্রাথমিক তদন্তে বনদফতরের অনুমান কোন বিষক্রিয়ার কারণেই মৃত্যু হয়ে থাকতে পারে পূর্ণবয়ষ্ক পুরুষ চিতাবাঘটির। মৃত চিতাবাঘটি পুর্ণবয়স্ক ছিল বলে প্রথমিক অনুমান বন্দফতরের। বুধবার সকালে চাবাগানের এক কর্মী কাজ করতে গেলে তার নজরে আসে চিতাবাঘের মৃতদেহ। ঘটনার খবর চড়াও হতেই চাবাগানের কর্মীরা এসে ভীড় জমায় ঘটনাস্থলে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে বনদফতরের বিন্নাগুরি রেঞ্জের কর্মীরা।বনদফতরের উদ্যোগে মৃত চিতাবাঘটি কে উদ্ধার করে লাটাগুড়িতে পাঠানো হয় ময়নাতদন্তের জন্য।
প্রসঙ্গত, চা বাগানের ভেতর থেকে উদ্ধার এক পূর্ণবয়ষ্ক পুরুষ চিতাবাঘের দেহ। বুধবার সকালে চিতা বাঘের দেহটি উদ্ধার হয় জলপাইগুড়ি জেলার বানারহাট ব্লকের শ্যামবাড়ী ডিভিশনে ডায়না চা-বাগানে। এদিন সকালে ডায়না চা-বাগানের তিন নম্বর সেকশনে চিতা বাঘটিকে মৃত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখেন নারায়ন মাহাতো নামে এক চাবাগানের এক পাহারাদার। এরপরই বিষয়টি জানাজানি হতেই ঘটনাস্থলে ভিড় জমায় চা শ্রমিকরা। ব্যহত হয় চাবাগানের কাজকর্ম। ঘটনায় ব্যপক চাঞ্চল্য ছড়ায়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে বনদফতরের বিন্নাগুরি রেঞ্জের কর্মীরা। তারা ঘটনাস্থল থেকে চিতাবাঘের দেহটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য পাঠায় লাটাগুড়িতে। প্রাথমিক তদন্তে বনদফতরের অনুমান কোন বিষক্রিয়ার কারণেই মৃত্যু হয়ে থাকতে পারে পূর্ণবয়ষ্ক পুরুষ চিতাবাঘটির। দু-তিন দিন আগেই চিতাবাঘটির মৃত্যু হয়েছে বলে অনুমান করা হচ্ছে।

You may have missed

Copyright © All rights reserved. | Newsphere by AF themes.