Sun. Apr 21st, 2024

প্রণয় ঘটিত কারণে থেকে নাবালিকাকে রাতের অন্ধকারে গুলি করে খুনের চেষ্টা কিশোরের।

1 min read

 

আজকেরবার্তা, বংশীহারী, ৬মেঃ রাতের অন্ধকারে নাবালিকাকে গুলি করে খুনের চেষ্টার কিশোরের। প্রণয়ঘটিত কারণ এর জেরে এই ঘটনা বলে প্রাথমিক অনুমান পুলিশের। ঘটনার জেরে চাঞ্চল্য ছড়ায় দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার বংশিহারি ব্লকের বুনিয়াদপুর এলাকায়।
প্রণয় ঘটিত কারণে থেকে নাবালিকাকে রাতের অন্ধকারে গুলি করে খুনের চেষ্টা কিশোরের। স্থানীয় সূত্রে খবর, বৃহস্পতিবার রাত্রি আনুমানিক ৯টা নাগাদ টিউশন পড়ে বাড়ি ফিরছিল বুনিয়াদপুর পুরসভার ১নং ওয়ার্ড খুশিপুরের এক নাবালিকা। সেইসময়ই ২ নং ওয়ার্ড শেরপুর মসজিদ সংলগ্ন এলাকায় অন্ধকার রাস্তায় এলাকার কিশোর মানিক হালদার (২২) পথ আটকায় তার। এরপরই ওই নাবালিকার সাথে বচসায় জড়িয়ে পড়ে ওই কিশোর। চিৎকার-চেঁচামেচিতে পার্শ্ববর্তী ক্লাব থেকে স্থানীয় ছেলেরা ছুটে আসে। নাবালিকাকে উত্ত্যক্ত করার ঘটনা আটকাতে গেলেই গুলি চালায় কিশোর মনিক হালদার। ঘটনায় গুলিবিদ্ধ হয় এলাকার অপর এক কিশোর রাজা দাস (২০)। তড়িঘড়ি আহত কিশোরকে প্রথমে রশিদপুর গ্রামীণ হাসপাতাল, পরবর্তীতে গঙ্গারামপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। যদিও অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় রাতেই গুলি বিদ্ধ কিশোরকে মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে এসে অভিযুক্ত মানিক হালদারকে গ্রেফতার করে বংশীহারী থানার পুলিশ।

পাশাপাশি শেরপুর এলাকায় রাস্তা সংলগ্ন বাঁশঝাড় থেকে উদ্ধার হয় ঘটনায় ব্যবহৃত একটি পিস্তল। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে ওই নাবালিকা কিশোরীর সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল মানিক হালদারের। সম্পর্কের টানাপোড়নের জেরেই এমন ঘটনা ঘটিয়েছে কিশোর। অবশ্য নাবালিকার পরিবারের দাবি প্রেম নয়, বেশ কিছুদিন ধরেই ওই অভিযুক্ত কিশোর এমনিতেই উত্ত্যক্ত করতো নাবালিকাকে।বেশ কয়েক মাস আগে দিল্লি থেকে এসে, অভিযুক্ত কিশোর নাবালিকার বাড়ির পাশেই মামার বাড়িতে থাকতো। অভিযুক্ত কিশোরের বাড়ি কুশমন্ডি থানার ছাইতান এলাকায়। তার বাবা-মা কর্মসূত্রে দিল্লীতে থাকেন। গতকাল রাতেই এমন ঘটনা চাউর হতেই এলাকা জুড়ে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। পাশাপাশি রাতের অন্ধকারের শহরের বুকে এমন গুলি কাণ্ডের ঘটনায় পুলিশি নিষ্ক্রিয়তা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে বিভিন্ন মহলে। যুবকের কাছে কোথায় থেকে আগ্নেয় অস্ত্র এলো ঘটনার তদন্তে নেমেছে বংশীহারী থানার পুলিশ।

শুক্রবার সকালে সম্পূর্ণ বিষয় নিয়ে সাংবাদিক বৈঠক করেন বংশীহারী থানার আইসি মনোজিৎ সরকার।এই বিষয়ে তিনি বলেন “খুশিপুর এলাকায় একটি ছেলে ও মেয়ের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক ছিল, সম্পর্ক ভেঙে যাওয়ার পরেই গতকাল রাতে আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে চড়াও হয় অভিযুক্ত যুবক, বাসীরা বাধা দিতে এলে। অভিযুক্তর গুলিতে গুলিবিদ্ধ হয় এলাকার অপর এক কিশোর রাজা দাস(২০)। ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্ত চলছে।” জানা গেছে শুক্রবার ধৃত কিশোরকে গঙ্গারামপুর মহকুমা আদালতে তুলে রিমান্ডের আবেদন করবে পুলিশ।*

 

You may have missed

Copyright © All rights reserved. | Newsphere by AF themes.